• ঢাকা
  • সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০ | ১৫ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭

মাস্ক না থাকায় ম্যাজিস্ট্রেটের নির্দেশে মারপিট, মায়ের ওষুধের টাকায় রেহায় পেল যুবক

মাস্ক না থাকায় ম্যাজিস্ট্রেটের নির্দেশে মারপিট, মায়ের ওষুধের টাকায় রেহায় পেল যুবক

  বাহাদুর আলম,ব্রাহ্মণবাড়িয়া : ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাস্ক না পড়ায় ভ্রাম্যমান আদালতের বিরুদ্ধে ২ যুবককে মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। বুধবার দুপুরে শহরের পৌর আধুনিক সুপার মার্কেটের সামনে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পরপর প্রেসক্লাবে এসে অভিযোগ করেন ওই দুই যুবক। এসময় তাদের একজন ব্যাথায় কাঁদছিলেন। তবে মারধোরের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট কিশোর কুমার।  ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর উপজেলার চিনাইর গ্রাম থেকে শহরে আসেন রাব্বী। তার মাস্ক পড়া ছিলোনা। এজন্যে পৌর আধুনিক সুপার মার্কেটের সামনে ভ্রাম্যমান আদালত তাকে দাঁড় করিয়ে ৫’শ টাকা জরিমানা আরোপ করে। রাব্বীর অভিযোগ সঙ্গে জরিমানার টাকা না থাকায় বিকাশে টাকা এনে দেবে বলে ভ্রাম্যমান আদালতকে জানায় সে। কিন্তু টাকা দিতে দেরী করায় ম্যাজিষ্ট্রেটের নির্দেশে পুলিশ তাকে ভেতরে নিয়ে পেটাতে শুরু করে। এরপর সে মায়ের ঔষধ কেনার জন্যে আনা টাকা পকেট থেকে বের করে দেয়। ম্যাজিষ্ট্রেট ও পুলিশ তখন তাকে বলে, এখন এক লাখ টাকা জরিমানা দিলেও কাজ হবেনা। ৭ দিনের জেল দেয়া হবে তকে। তার দাবী পুলিশের লাঠির আঘাতে তার বা হাত ভেঙ্গে গেছে। ঘটনার বর্ননা দেয়ার সময় ব্যাথায় কাঁদতে থাকেন রাব্বী। একই সময়ে শহরের ভাদুঘর এলাকা থেকে আসা রতন ও তার ভাই জাকির মুখোমুখি হন ওই ভ্রাম্যমান আদালতের। হেনস্থার শিকার হন তারাও। রতনের মাস্ক ছিলোনা। এজন্যে তাদের দাঁড় করানো হয়। জাকির জানান, তিনি জরিমানার টাকার রশিদ চাওয়ায় তার ওপর ক্ষিপ্ত হন ম্যাজিষ্ট্রেট ও পুলিশ। সরকারী কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগ এনে মারধোর শুরু করে তাকে। তবে এই অভিযোগ অস্বীকার করেন ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনাকারী নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট কিশোর কুমার। তিনি বলেন, নরমালি সবাইকে জরিমানা করা হয়েছে। সবাই জরিমানা দিয়েছেন। শুধু একটাই ব্যতিক্রম ছিলো। একটা লোক টাকা থাকা সত্বেও জরিমানা দিতে চাচ্ছিলেন না। একাধিকবার তাকে টাকা দিতে বলা হয়। এরপর জেলের ভয় দেখিয়ে তাকে কিছুক্ষন গাড়িতে রাখা হয়। পরে বিকাশে জরিমানার টাকা এনে দিয়ে চলে যায় সে। কাউকে মারধোরের প্রশ্নই উঠেনা। পৌর মার্কেটের সামনের মতো একটি জায়গায় তা সম্ভবও নয়। ভারপ্রাপ্ত অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মো: রুহুল আমিন বলেন, আমার জানা মতে এমন ধরনের ঘটনা ঘটেনি।

নিবন্ধনের চূড়ান্ত অনুমতি পেল .....

অনলাইন ডেস্ক:

আরও ৫১টি অনলাইন নিউজ পোর্টালকে নিবন্ধনের অনুমতি দিয়েছে সরকার।

রবিবার তথ্য মন্ত্রণালয় এ.....

স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্র চা.....

অনলাইন ডেস্ক:

রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৯৬৭ সালের সীমান্তের ভিত্তিতে একটি .....

আমরা ভাস্কর্যের বিরুদ্ধে, বঙ্.....

অনলাইন ডেস্ক:

আবারও স্পষ্ট করে বলছি আমাদের বক্তব্য ভাস্কর্যের বিরুদ্ধে, কোনোভাবেই বঙ্গবন্ধুর বিরুদ্ধে ন.....

চিকিৎসক যখন ব্যবসায়ী হয় .....

অনলাইন ডেস্ক:

কিছুদিন ধরে উচ্চ রক্তচাপ, খুব বেশি ঘামসহ নানা সমস্যার কারণে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ.....

গ্রেফতার-ওয়ারেন্ট নিয়ে আইজিপ.....

অনলাইন ডেস্ক:

পুলিশের মহাপরিদর্শক ড. বেনজীর আহমেদের নাম ব্যবহার করে গ্রেফতার ও ওয়ারেন্ট সংক্রান্ত সামা.....

ভাস্কর্য নিয়ে কথা বলে তারা প্র.....

মোঃ ওবায়েদুর রহমান সাইদ : পানিসম্পদ উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম বলেছেন, যারা বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও সো.....

ভাস্কর্য নিয়ে কথা বলে তারা প্র.....

মোঃ ওবায়েদুর রহমান সাইদ : পানিসম্পদ উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম বলেছেন, যারা বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও সো.....

প্রেস কাউন্সিল আইন সংশোধন হচ্.....

অনলাইন ডেস্ক:

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ জানিয়েছেন, প্রেস কাউন্সিল আইন সংশোধন হচ্ছে, শিগগিরই মন্ত্রিসভা.....

'সরকার তাদের দুঃশাসন আড়াল করার.....

অনলাইন ডেস্ক:

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, সরকার তাদের ভয়াবহ দুঃশাসন আড়াল করার ঘৃণ্য অপ.....

প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক নি.....

অনলাইন ডেস্ক:

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নিয়োগের আবেদনপ্রক্রিয়া শেষ হয় ২৪ নভেম্বর রাত ১১ট.....

লিবিয়া থেকে ফিরলেন ১৫৭ বাংলাদ.....

অনলাইন ডেস্ক:

লিবিয়ায় আটকে পড়া ১৫৭ জন বাংলাদেশি দেশে ফিরেছেন। আজ শুক্রবার একটি বিশেষ ফ্লাইটে তারা ঢাকায় প.....

যারা বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ.....

রুশদী রোমান, শরীয়তপুর:

পানি সম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক  একেএম এনামুল হক শামী.....