• ঢাকা
  • বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০ | ১৭ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭
কুমারখালীতে যৌতুকের বলি হল গৃহবধূ খাদিজা

''তোমরা তাড়াতাড়ি টাকা নিয়ে আস, ওরা আমাকে মেরে ফেলবে''

''তোমরা তাড়াতাড়ি টাকা নিয়ে আস, ওরা আমাকে মেরে ফেলবে''

মোঃ সামরুজ্জামান (সামুন), কুষ্টিয়া :'ভাই ওরা আমাকে যৌতুকের টাকার জন্য মারতেছে। তোমরা তাড়াতাড়ি পঞ্চাশ হাজার টাকা নিয়ে আস। না হলে ওরা আমাকে মেরে ফেলবে।' গলায় ফাঁস নেওয়ার আগে মুঠোফোনে বড় ভাই হানিফকে উক্তরোক্ত কথাগুলো বলেছিল দুই সন্তানের জননী নিহত খাদিজা (৪০)।সে কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার জগন্নাথপুর ইউনিয়নের চর জগন্নাথপুর গ্ৰামের আকাম উদ্দিনের ছেলে সামছুল বিশ্বাসের (৪৫) স্ত্রী। প্রায় এক সপ্তাহ যাবৎ বিভিন্ন হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে যুদ্ধ করে অবশেষে বৃহস্পতিবার বিকেলে কুমারখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় খাদিজার নির্মম মৃত্যু হয়।নিহতের ভাই হানিফ প্রামাণিক বলেন, নয় বছর আগে ত্রিশ হাজার টাকা যৌতুক মিটিয়ে আমার বোনের সাথে একই এলাকার সামছুলের সাথে পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের টাকার জন্য চাপ দিত, মারধর করত স্বামী। এক পর্যায়ে অনেক কষ্টে যৌতুকের টাকা পরিশোধ করলেও থেমে থাকেনি সামছুলের পাশবিক নির্যাতন। এভাবে নির্মম নির্যাতন চলমান থাকায় গত নয় বছরে প্রায় দুই লক্ষ টাকা যৌতুক দেওয়া হয় বোনের স্বামীকে।এরপর হঠাৎ গত ২০ আগষ্ট খাদিজা আমাকে ফোন দিয়ে বলে ওরা আমাকে মারতেছে, তোমরা তাড়াতাড়ি পঞ্চাশ হাজার টাকা নিয়ে আসো, নয়লে ওরা আমাকে মেরে ফেলবে।এমন খবর পেয়ে দ্রুত বোনের শ্বশুড় বাড়ি গিয়ে দেখি গলায় ফাঁস নেওয়া অবস্থায় ঘরের ডাবের সাথে ঝুলে আছে আমার বোন। এরপর অসু্স্থ অবস্থায় উদ্ধার করে দ্রুত কুমারখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে রেফার্ড করেন। সেখানে তার অবস্থার পরিবর্তন না হলে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তিনদিন পর সেখান থেকে রিলিজ দিলে পুনরায় কুমারখালী উপজেলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে বৃহস্পতিবার বিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় খাদিজার মৃত্যু হয়।উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পঃপঃ কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ আকুল উদ্দিন বলেন, গলায় ফাঁস নেওয়ার পর প্রথমে ২০ আগষ্ট কুমারখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে খাদিজা নিয়ে আসা হলে অবস্থা আশঙ্খাজনক হওয়ায় রেফার্ড করা হয়।সেখান থেকে নিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাকে। এরপর পুনরায় কুমারখালী হাসপাতালে ভর্তি করা হলে বৃহস্পতিবার দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তিনি আরো বলেন, পোষ্ট মোর্টেম রিপোর্ট পেলেই মৃত্যু কারণ জানা যাবে।এদিকে ঘটনার পর থেকেই পলাতক রয়েছে যৌতক লোভী ঘাতক স্বামী সামছুল ও তার পরিবারের লোকজন। এবিষয়ে ঘাতক স্বামীর চাচা সাবেক মেম্বর জাবেদ আলী মুঠোফোনে বলেন, দোকান করা নিয়ে ওদের মারামারির একপর্যায়ে গলায় ফাঁস নিয়ে আত্মহত্যা চেষ্টার কথা শুনেছি। তবে পরে কি হয়েছে জানিনা।কুমারখালী থানা অফিসার ইনচার্জ মজিবুর রহমান বলেন, যৌতুকের কারনে গলায় ফাঁস লাগিয়ে খাদিজার মৃত্যু হতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য কুষ্টিয়ার মর্গে পাঠানো হয়েছে।রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর আসল কারন জানা যাবে।তিনি আরো বলেন, এঘটনার নিহতের ভাই বাদী হয়ে নারী নির্যাতন ও যৌতুকের অভিযোগে একটি মামলা করেছে। মামলা নং ২৪, তাং- ২৭-০৮-২০২০।

রাজনৈতিক মোল্লারা বঙ্গবন্ধুক.....

অনলাইন ডেস্ক:

ভাস্কর্য ভাঙার হুমকির মাধ্যমে রাজনৈতিক মোল্লারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে দ্বিতীয়বা.....

বিজয় দিবসের অনুষ্ঠান এবার উন.....

অনলাইন ডেস্ক:

করোনাভাইরাসের কারণে আসছে বিজয় দিবসে উন্মুক্ত স্থানে কোনো অনুষ্ঠান করা যাবে না বলে জানিয়.....

দেশে এইডসে এক বছরে ১৪১ মানুষের.....

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশে এইচআইভি–এইডসে আক্রান্ত হয়ে গত এক বছরে ১৪১ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে দেশ.....

সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সরকারের.....

অনলাইন ডেস্ক:

আগামী ১৪ ডিসেম্বর সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালনের নির্দেশ দিয়েছে সরকার। .....

প্রকাশ হয়েছে দুই বিসিএসের বিজ.....

অনলাইন ডেস্ক:

৪২তম ও ৪৩তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। আজ সোমবার (৩০ নভেম্বর) রাতে পিএসসির ওয়েবসা.....

আজ রাতেই হবে দুই বিসিএসের বিজ্.....

অনলাইন ডেস্ক:

৪২তম ও ৪৩তম, এই দুই বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি একই দিনে প্রকাশ হতে যাচ্ছে। পিএসসি সূত্র জানিয়েছে, আজ .....

সঠিক তথ্য-উপাত্ত নেই এমন অনলাই.....

অনলাইন ডেস্ক:

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেন, সঠিক তথ্য-উপাত্ত পাওয়া যায়নি এমন অনলাইনগুলোর বিষয়ে শিগগির.....

নিবন্ধনের চূড়ান্ত অনুমতি পেল .....

অনলাইন ডেস্ক:

আরও ৫১টি অনলাইন নিউজ পোর্টালকে নিবন্ধনের অনুমতি দিয়েছে সরকার।

রবিবার তথ্য মন্ত্রণালয় এ.....

স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্র চা.....

অনলাইন ডেস্ক:

রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৯৬৭ সালের সীমান্তের ভিত্তিতে একটি .....

আমরা ভাস্কর্যের বিরুদ্ধে, বঙ্.....

অনলাইন ডেস্ক:

আবারও স্পষ্ট করে বলছি আমাদের বক্তব্য ভাস্কর্যের বিরুদ্ধে, কোনোভাবেই বঙ্গবন্ধুর বিরুদ্ধে ন.....

চিকিৎসক যখন ব্যবসায়ী হয় .....

অনলাইন ডেস্ক:

কিছুদিন ধরে উচ্চ রক্তচাপ, খুব বেশি ঘামসহ নানা সমস্যার কারণে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ.....

গ্রেফতার-ওয়ারেন্ট নিয়ে আইজিপ.....

অনলাইন ডেস্ক:

পুলিশের মহাপরিদর্শক ড. বেনজীর আহমেদের নাম ব্যবহার করে গ্রেফতার ও ওয়ারেন্ট সংক্রান্ত সামা.....