• ঢাকা
  • বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | ১৮ মাঘ, ১৪২৯

রংপুরে জনসাধারণের ৫০ বছরের চলাচলের রাস্তা বন্ধ : ভোগান্তিতে এলাকাবাসী

রংপুরে জনসাধারণের ৫০ বছরের চলাচলের রাস্তা বন্ধ : ভোগান্তিতে এলাকাবাসী

তৌহিদ বাবলা, রংপুর ব্যুরো || জনসাধারণের চলাচরের জন্য এজমালি করে দেয়া রাস্তাটিতে দীর্ঘ ৫০ বছর ধরে চলাচল করে আসছে স্থানীয় বাসিন্দারা। হঠাৎ করে রাতের আঁধারে চলাচলের একমাত্র রাস্তাটি টিনের বেড়া দিয়ে বন্ধ করে দেয়ায় ভোগান্তিতে পড়েছে বসবাসরত পরিবারগুলো। শুধু তাই নয়, রাস্তাটি রীতিমত কেটে পাশের পুকুরের সাথে সংযোগ করে দেয়া হয়েছে। সেইসাথে বাকি রাস্তার মাঝে সুপারী গাছ লাগানো হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে রংপুর নগরীর বাহারকাছনা মজিদের মার্কেট এলাকায়। এঘটনায় ভোগান্তি তুলে ধরে স্থানীয় বাসিন্দাদের মধ্যে ৫১ জন গণস্বাক্ষর দিয়েছেন।

সরেজমিনে জানা যায়, নগরীর বাহারকাছনা মজিদ মার্কেট বাজার এলাকার মৃত খলিল মাহমুদ এর দুই পুত্র মনির উদ্দিন ও মকবুল হোসেন। দুইভাই মিলে বাপ-দাদার জমি থেকে এই রাসস্তাটি মৌখিকভাবে এজমালি করে দেন। কিন্তু বড় ভাই মনির উদ্দিনের মৃত্যুর বছর না ঘুরতেই ছোট ভাই মকবুল হোসেন রাস্তাটি নিজের জমিতে বলে দাবি করে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেন। মনির উদ্দিনের মৃত্যুর পর তার ভাইয়ের এমন ঘৃণ্য চক্রান্তের শিকার হয়েছেন জমি ক্রেতা ও মনিরের সন্তানেরা। এ বিষয়ে রংপুর মেট্রোপলিটন হারাগাছ থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন জমির ক্রেতা ভুক্তভোগী ডা. বি.এ আনসারী ও মনির উদ্দিনের ছেলে আব্দুর রহিম।

অভিযোগে জানা যায়, রংপুর নগরীর চাউল আমদ রোড সিঙ্গারগলির বাসিন্দা মৃত আমির হোসেনের পুত্র ডা. বি এ আনছারী (৬২)। ২০০২ সালে রংপুর নগরীর বাহার কাছনা এলাকার মৃত খলিল মাহমুদের পুত্র মনির উদ্দিনের কাছ থেকে ১.২৬ একর জমি ক্রয় করেন। কিন্তু ক্রয়কৃত জমি দখল না পাওয়ায় তিনি বাধ্য হয়ে ২০১০ সালে উক্ত জমির উপর একটি উচ্ছেদ মামলা দায়ের করেন। ২০১৮ সালে উক্ত জমির উপরে মামলার রায় পান ডা. বি এ আনছারী। ২০২০ সালের ১৮ অক্টোবর কোর্ট মারফত উক্ত জমির দখল তাকে বুঝে দেয়া হয়। জমিটি ডা. বি এ আনছারীর দখলে থাকা অবস্থায় ২০২২ সালের ৯ নভেম্বর আনুমানিক সন্ধা ৬ টায় মনির উদ্দিনের ছোট ভাই বিবাদী মকবুল হোসেন তার ছেলে শফিকুল ইসলাম ও শহিদুল ইসলাম দলবলসহ ডা. বি এ আনছারীর ক্রয়কৃত জমিতে যাওয়ার রাস্তাটি টিন ও সুপারির গাছ লাগিয়ে বন্ধ করে দেয়। সেইসাথে রাস্তাটি কেটে মাটি পুকুরে ফেলে দেয়। ফলে উক্ত রাস্তায় তিনিসহ মনির উদ্দিনের ছেলের পরিবার-পরিজন ও ওই রাস্তা দিয়ে চলাচলকারি পরিবারগুলো ভোগান্তিতে পরেন। এমন ঘটনায় মনির উদ্দিনের পুত্র আব্দুর রহিম (৫০) প্রতিবাদ করলে মকবুল হোসেনসহ তার ছেলেরা লাটিশোটা নিয়ে তার উপর হামলা চালায়।

মনির উদ্দিনের ছেলে আবদুর রহিম বলেন, জনসাধারণের চলাচলের জন্য বাপ-দাদার এজমালি দেয়া আমার বাড়ির সামনে যাওয়ার রাস্তাটিতে সুপারি গাছ ও টিনের বেড়া দিয়ে বন্ধ করে দেয়ার কারণ জিজ্ঞেস করলে আমার চাচা মকবুল হোসেন ও চাচাতো ভাই শহিদুল ইসলাম (৫৫), শফিকুল ইসলাম (৩৫) আমাকে অকথ্য ভাষায় গালি গালাজ করে। আমি গালি গালাজ করার প্রতিবাদ করা মাত্রই তারা আমাকে মারার উদ্দ্যেশে লাঠিশোঠা নিয়ে এগিয়ে আসলে আমি ভয়ে দৌড়ে বাড়ির ভিতরে ঢুকে পরি এবং দরজা বন্ধ করে দেই। তারপর বিবাদীদ্বয় আমার গেটে এসে আমাকে ঘর থেকে বের হলে মারবে এ ধরনের হুমকি-ধামকি দেয়। এঘটনায় আমি রংপুর মেট্রোপলিটন হারাগাছ থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করি।

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, দুইপক্ষের জমি সংক্রান্ত জেরে এবং স্থানীয় কতিপয় ভূমিদস্যুদের যোগসাজসে জনসাধারণের চলাচলের রাস্তাটি বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। তাদের ঝামেলা আর রেষাষির জাঁতাকলে পৃষ্ঠ হয়ে ভোগান্তিতে পরেছেন সাধারণ মানুষ। বিষয়টি দ্রæত সমাধনের জন্য অর্ধশতাধিক ভুক্তভোগি গণস্বাক্ষর দিয়ে প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগি ডা. এ বি আনসারী বলেন, কেনার সময়ে এই রাস্তাটি দেখে মনির উদ্দিনের জমি ক্রয় করি। প্রায় ৫০ বছর ধরে এই রাস্তা দিয়ে স্থানীয় বাসিন্দারা চলাচল করে আসছেন। মনির উদ্দিনের জমিতে যাওয়ার একমাত্রা রাস্তা এটি। জমি কেনার দীর্ঘ ২০ বছরেও রাস্তাটি নিয়ে কোন ঝামেল ছিল না। কিন্তু মনির উদ্দিন মারা যাওয়ার পর তার ভাই মকবুল হোসেন ঘৃণ্য উদ্দেশ্য চরিতার্থের জন্য রাস্তাটি নিজের অংশ দাবি করে বন্ধ করে দিয়েছেন।

এ বিষয়ে বিবাদী মকবুল হোসেন বলেন, রাস্তাটি আমার জমিতে। আর রেকোর্ডে সেটা রাস্তা হিসেবে নেই, তাই আমি বন্ধ করে দিয়েছি। আমার ভাই আমাকে অনেক ঠকিয়েছে, তাই ভাইয়ের মৌখিক কোন ওসিয়ত আমি মানবো না।##

বায়ুদূষণ রোধে বিশেষ অভিযানের নির্দেশ দিলেন পরিবেশমন্ত্রী

আজ মঙ্গলবার পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত এডিপি সভায় পরিবেশমন্ত্রী ছবি লাখো.....

মুসলিম উম্মাহকে ফিলিস্তিনের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করতে আসেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ওআইসির সদস্যভুক্ত সাতটি দেশের হাইকমিশনা.....

কড়া নিরাপত্তা বলয়ে থাকবে বইমেলা- ডিএমপি

ছবি-সংগৃহিত

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন: বইমেলা কেন্দ্র করে দুর্ঘটনা এড়াতে মেলা প্রাঙ্গণ, শাহবাগ, পলাশীসহ আশপাশ.....

সবচেয়ে দুর্নীতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় বাংলাদেশ ১২তম

ছবি-সংগৃহিত

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন: বিশ্বের ১৮০টি দেশের মধ্যে ‘সবচেয়ে দুর্নীতিগ্রস্ত’ দেশের তালিকায় ব.....

১৯১টি নিউজ পোর্টাল বন্ধে চিঠি দেওয়া হয়েছে: তথ্যমন্ত্রী

ফাইল ফটো

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন: তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, জনমনে বিভ্রান্তি ছড়ায়- এমন .....

রাজশাহীতে আ.লীগের সমাবেশে বিএনপির চেয়ে ১৪ গুণ বেশি লোক হয়েছে : তথ্যমন্ত্রী

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ সোমবার সচিবালয়ে নিজ দপ্তরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন। ছবি : পিআইডি

&nb.....

ঢাকায় আর্জেন্টিনার দূতাবাস চালু ২৭ ফেব্রুয়ারি

আর্জেন্টিনার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সান্তিয়াগো ক্যাফিয়েরো ও বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। ছব.....

অনির্বাচিত কাউকে দিয়ে দেশের উন্নয়ন হয় না: প্রধানমন্ত্রী

ছবি-সংগৃহিত

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন:  প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বলেছেন, নির্বাচনের মাধ.....

জাটকা ও মা মাছ নিধন বন্ধে আরও বেশি মোবাইল কোর্ট পরিচালনার আহ্বান মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রীর

রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে জেলাপ্রশাসক সম্মেলন। ছবি-লাখোকন্ঠ

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন: মৎস্য ও প্রাণ.....

অনিবন্ধিত পোর্টাল ও আইপিটিভির গুজব বড় চ্যালেঞ্জ : তথ্যমন্ত্রী

ছবি - ইন্টারনেট

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন: অনিবন্ধিত অনলাইন পোর্টাল, আইপিটিভি ও ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে গুজ.....

‘স্মার্ট বাংলাদেশ’ বিনির্মাণের প্রধান হাতিয়ার ডিজিটাল সংযোগ : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ডিজিটাল বাংলাদেশ মেলা-২০২৩ এর উদ্বো.....

পদোন্নতি পেয়ে ৪ জন অতিরিক্ত আইজিপি

বাঁ থেকে- জামিল আহমদ, ওয়াই এম বেলালুর রহমান, মীর রেজাউল আলম ও মো. হুমায়ুন কবির

লাখোকন্ঠ প্রতিবেদন: বাংলাদ.....