Ad: ০১৭১১৯৫২৫২২
২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ || ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন আদালত
  3. আইন শৃংখলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. কৃষি অর্থনীতি
  6. খেলাধূলা
  7. চাকরি-বাকরি
  8. জাতীয়
  9. জীবনের গল্প
  10. ধর্ম
  11. নির্বাচনী হাওয়া
  12. ফিচার
  13. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  14. বিনোদন
  15. রাজধানী
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে টানা চতুর্থবারের মতো বিজয়ী করার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী

নিউজ রুম
ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২৩ ৬:৩৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!

লাখোকণ্ঠ প্রতিবেদক,কিশোরগঞ্জ :নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে টানা চতুর্থবারের মতো বিজয়ী করার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী। দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা মার্কাকে ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে টানা চতুর্থবারের মতো বিজয়ী করার আহ্বান জানিয়ে দলটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘নৌকা মার্কা সরকারে এলেই দেশের উন্নতি হয়, মানুষ ভালো থাকে।’

আজ মঙ্গলবার কিশোরগঞ্জের মিঠামইন হেলিপ্যাড মাঠে উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত সুধী সমাবশে তিনি এ কথা বলেন।

এ বছরের শেষে বা আগামী বছরে শুরুতে নির্বাচন হবে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘সেই নির্বাচনে আপনারা নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে জয়যুক্ত করে আপনাদের সেবা করার সুযোগ দেবেন। আপনাদের কাছে এই আবেদন জানাই।’

আওয়ামী লীগ সভাপতি এ সময় উপস্থিত নেতা-কর্মী ও জনতাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘দুই হাত তুলে ওয়াদা করুন আপনারা নৌকা মার্কায় ভোট দেবেন। এ সময় উপস্থিত জনতা দুই হাত তুলে নৌকা মার্কায় ভোট দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলে মানুষ খেয়ে পরে ভালো থাকে। মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন হয়। অন্তত ১৪ বছরে আজকের বাংলাদেশ ঘুরে দাঁড়িয়েছে। বাংলাদেশ বিশ্বে মর্যাদা পেয়েছে, বাংলাদেশ উন্নয়নের রোল মডেল। বাংলাদেশ এগিয়ে যাবে।’

মঞ্চে উপস্থিত রাষ্ট্রপতির আব্দুল হামিদের ছেলে কিশোরগঞ্জ-৪ (ইটনা-মিঠামইন-অষ্টগ্রাম) আসনের সংসদ সদস্য রেজওয়ান আহম্মেদ তৌফিককে দেখিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘গত নির্বাচনে রাষ্ট্রপতির ছেলেকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন। আপনাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই। আগামীতেও একমাত্র নৌকা মার্কা সরকারে এলে আপনাদের উন্নতি হবে, দেশের উন্নতি হবে। এই হাওড় অঞ্চলের উন্নয়নে যে সার্বিক কর্মসূচি আমরা বাস্তবায়ন করছি সেগুলো বাস্তবায়িত হবে।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘নৌকা এটা আমাদের প্রতিক। নদী মাতৃক বাংলাদেশ, এই নৌকায় ভোট দিয়ে দেশের মানুষ স্বাধীনতা পেয়েছে। এই নৌকায় ভোট দিয়েছে বলেই আজকে কিশোরগঞ্জ অবহেলিত নেই। আজকে উন্নত একটি জেলায় উন্নীত হয়েছে। প্রতিটি উপজেলা উন্নত হচ্ছে।’

আওয়ামী লীগ সরকারের সঙ্গে বিএনপিসহ অন্য সরকারগুলোর কাজের তুলনা করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘লুটপাট, অর্থপাচার, জঙ্গীবাদ, দুর্নীতি, সন্ত্রাস, মানুষ হত্যা, আর আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীর ওপর অকথ্য নির্যাতন তারা চালায়। মানুষের ওপর অত্যাচার আর মানুষকে শোষণ করা ছাড়া আর কিছু তারা দিতে পারে নাই, পারবেও না। তার কারণ হচ্ছে যাদের হাতে এই দলটি সৃষ্টি তারা কখনো জনগণের ভোট নিয়ে ক্ষমতায় যায় না।

‘অবৈধভাবে, সংবিধান লঙ্ঘন করে যারা ক্ষমতায় আসে, যে ক্ষমতা উচ্চ আদালত বলেছে অবৈধ, অবৈধ ক্ষমতা দখলকারীর হাতে তৈরি সংগঠন; এরাতো জনগণের কথা চিন্তা করে না। এরা বাংলাদেশের কথাই চিন্তা করে না। এরা আসে লুটপাট করে নিতে। তাই যখনই এরা ক্ষমতায় এসেছে এদেশের মানুষের সম্পদ লুট করেছে, বিদেশে পাচার করে এখন আরাম আয়েশে দিন কাটায়।’

অবাধ পানি প্রবাহের জন্য হাওড়ের সকল এলিভেটেড হবে বলে জানিয়ে সরকার প্রধান বলেন, ‘বর্ষা মৌসুমে পানির স্বাভাবিক প্রবাহ ও মাছের চলাচল যেন বাধাগ্রস্ত না হয় এবং নৌকাসহ মানুষের যোগাযোগ ব্যবস্থা যেন ব্যাহত না হয়-সেজন্য সকল সড়ক এলিভেটেড করা হবে।’

এর আগে সকাল ১১টার দিকে বিমান বাহিনীর বিশেষ হেলিকপ্টারে মিঠামইনে আসেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি প্রথমে বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হামিদ সেনানিবাস উদ্বোধন করেন। পরে দুপুরে খাবার খেতে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের বাসভবনে যান। সেখানে রাষ্ট্রপতি তাঁর পরিবারের সদস্যরা প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানান। পরে সুধী সমাবেশে যোগ দিতে দুপুর ২টা ৫০ মিনিটের দিকে মিঠামইন হেলিপ্যাড মাঠে যান শেখ হাসিনা।

এদিকে সুধী সমাবেশে যোগ দিতে মঙ্গলবার ভোর থেকে ইটনা, মিঠামইন, অষ্টগ্রাম, করিমগঞ্জ, নিকলী, বাজিতপুরসহ কিশোরগঞ্জের অধিকাংশ উপজেলার নেতা-কর্মীরা সড়ক পথে, বাস, পিক-আপ, মাইক্রোবাস, অটোরিকশা ও নৌ-পথে নৌকা, ট্রলার ও লঞ্চ যোগে সুধী সমাবেশে যোগ দেন।

 



এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।