Ad: ০১৭১১৯৫২৫২২
১৪ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ || ৩১শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন আদালত
  3. আইন শৃংখলা
  4. আন্তর্জাতিক
  5. কৃষি অর্থনীতি
  6. খেলাধূলা
  7. চাকরি-বাকরি
  8. জাতীয়
  9. জীবনের গল্প
  10. ধর্ম
  11. নির্বাচনী হাওয়া
  12. ফিচার
  13. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  14. বিনোদন
  15. রাজধানী
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ওপারে ভালো থেকো প্রিয় ‘মা’

নিউজ রুম
সেপ্টেম্বর ২২, ২০২৩ ১১:৪৫ অপরাহ্ণ
Link Copied!

মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ প্রিন্স

মা’ একটি ছোট্ট শব্দ। এই শব্দের মধ্যেই লুকিয়ে আছে পৃথিবীর সব মায়া, মমতা, অকৃত্রিম স্নেহ, আদর, নিঃস্বার্থ ভালোবাসার সব সুখের কথা। চাওয়া-পাওয়ার এই পৃথিবীতে বাবা-মায়ের ভালোবাসার সঙ্গে কোনো কিছুর তুলনা চলে না। মায়ের তুলনা মা নিজেই। মায়ের মতো এমন মধুর শব্দ অভিধানে দ্বিতীয়টি আছে বলে আমার জানা নেই। নদীর তলদেশে তো যাওয়া যায়,নদীর গভীরতাও নির্নয় করা যায় কিন্তু মায়ের ভালোবাসার গভীরতা পরিমাপ করা যায় না। ‘মা’ যেন সীমার মাঝে অসীম।

সময় কত দ্রুত চলে গেলো মা। তোমার সেই দুষ্টু ছেলেটা আজ কত বড় হয়ে গেছে, আর তুমিও ১০০টি বসন্ত পেরিয়ে গত ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩,শুক্রবার বাদ মাগরিব পৃথিবীর সব মায়া ছিন্ন করে আমাদের সবাইকে চির এতিম বানিয়ে চির নিদ্রায় শায়িত হলে তুমি ।বেদনার ক্ষত বিক্ষত হৃদয়ে তোমাকে নিয়ে কিছু লেখার ভাষা আজ আমার নেই, অব্যক্ত হৃদয়ের কথায় জানতে ইচ্ছে হয়, কোনো দিন কি তোমাকে এক টুকরা সুখ দিতে পেরেছিলাম মা? কেবলই মনে পড়ে তোমার সঙ্গে বিনা কারণে রাগ করে কথা বলার মুহূর্তগুলোর কথা। তোমার কাছে ক্ষমা চাওয়ার মতো যোগ্যতাটুকুও আমার নেই। ‘মা’ তোমাকে খুব মনে পড়ছে। বাবা পৃথিবী ছেড়ে চলে যাওয়ার পর থেকে যেমনটি করে সব সন্তানকে একই সুতোয় আঁকড়ে রেখে ছিলে, সেটি আমার দৃষ্টিতে খুবই নজিরবিহীন।তুমি ছিলে আমাদের সব ভাই-বোনের সেতু বন্ধন।

পৃথিবীটা অনেক কঠিন সবাই সবাইকে ছেড়ে চলে যায়। সবাই সবাইকে ভুলে যায়। কিন্তু মায়ের ভালোবাসা আজীবন রয়ে যায়।জীবনে মা কতটা গুরুত্বপূর্ণ তা বোঝাতে ও বর্ণনা করার মত শব্দ এবং বুদ্ধি আমার কাছে নেই জানি। মা যেন একটা সৌন্দর্য, মুক্তি, অধিকার ও সম্মানের প্রতীক। মা সন্তানের ভবিষ্যতের স্বপ্ন দেখার উৎস, সবচেয়ে আপন। মাকে ঘিরে থাকা অজস্ত্র স্মৃতিতে মনের ভিতর সৃষ্টি হওয়া অনুভূতির কাছে আকাশ সীমাবদ্ধ হয়ে পড়ে, সমুদ্রও হেরে যায়। মার অকৃত্রিম, নিঃস্বার্থ ভালোবাসা মুগ্ধ করে, মনে প্রশান্তি আনে। মা মানসিক প্রশান্তির অসাধারণ উৎস।প্রতিটি সন্তানের কাছেই তার মা অদ্বিতীয়। মা উচ্চারণের সাথে সাথেই সন্তানের মনের ভিতর এক অন্যরকম অনুভূতি ও ঝড়ের সৃষ্টি হয়। যে অনুভুতি মায়ের সাথে সন্তানের মনের বিনি সূতার মালা সৃষ্টি করে। জন্মের পর প্রথম আমরা কেউ আকাশ দেখিনি, মাকেই দেখেছি। পৃথিবীতে আর কাউকেই এত কষ্ট দেয়নি, যত কষ্ট মাকে দিয়েছি।যখন সন্তানের মুখে অর্থপূর্ণ কোনো ভাষা থাকে না, তখনও মা বুঝেন তার প্রয়োজন-চাহিদা। সন্তানের বলার আগেই যিনি নিজের সবটুকু উজাড় করে দিতে প্রস্তুত থাকেন তিনি মা। মা ছাড়া আর কেউ অমন করে সন্তানকে নিয়ে ভাবে না। তাইতো মায়ের ভালোবাসার কাছে জগতটাকেই তুচ্ছ মনে হয়। সন্তানের সুখেই মায়ের অন্তহীন সুখ, সন্তানের হাসিমুখ ভুলায় মা’র দু:খ। সন্তানের পাশে শুয়ে মাথায় হাত বুলানো, স্বপ্ন আশা ভরে বুকে জড়ানোতো মায়েরই কাজ।

মমতাময়ী নয়ন সদা খুঁজে ফিরে, তার প্রিয় সন্তান কখন বাড়ি ফেরে।মা তুমি আজ আমাদের মাঝে নেই ভাবতেই বড় কষ্ট লাগে। তোমার সন্তানের জন্য দোয়া করো মা। ওপারে ভালো থেকো প্রিয় মা।স্মৃতির মণিকোঠায় তুমি থাকবে সদা বিরাজমান। তোমার বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি।



এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।